Reading Time: 2 minutes

আপনার রক্তের গ্লুকোজ মাত্রা সম্পর্কে তাৎক্ষণিকভাবে অনুমিত মান পেতে, গ্লুকোমিটার হল একটি মূল্যবান যন্ত্র। এটি পরীক্ষাগারে রক্ত পরীক্ষার খরচের চেয়ে সস্তা এবং আরও সুবিধাজনক, যার ফলে এর ব্যবহারে রক্তের গ্লুকোজ মাত্রার আরও ঘন ঘন পরীক্ষা করা এবং স্ব-পর্যবেক্ষণ করা সম্ভব হয়। গ্লুকোমিটার এইভাবে ডায়াবেটিস বা প্রিডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণের জন্য টুলকিটের একটি অপরিহার্য অংশে পরিণত হয়।

তবে গ্লুকোমিটারগুলির ব্যবহার ক্ষমতা সীমিত। যে কারণে এটাই রক্তে গ্লুকোজ মাত্রা পরিমাপের একমাত্র উপায় হওয়া উচিত নয়।

জোগেশ্বরীতে স্থিত ডাঃ রাই ক্লিনিকের ডাঃ প্রকাশ টি রাই, MDর মতে, “রক্তে গ্লুকোজের মাত্রা নিয়ন্ত্রণই ডায়াবেটিসের সব জটিলতা রোধের মূল চাবিকাঠি। যদিও রক্তের গ্লুকোজ-এর স্ব-পর্যবেক্ষণ (SMBG) গ্লুকোজ মাত্রা সম্পর্কে ন্যায্য ধারণাই দেয়, তবে গ্লুকোমিটারের সঠিক পরিমাপ এর পদ্ধতিগত কৌশলটি নিশ্চিত করতে ল্যাব পরীক্ষাগুলির মাধ্যমে এটি সমর্থন করা দরকার।

প্রথমত, গ্লুকোমিটার সাধারণত এক নির্দিষ্ট সময়কালের মধ্যে রক্তের গ্লুকোজ ট্র্যাক করে রাখে না। যদিও নতুন যন্ত্রগুলিতে বেশ কয়েকটি আগে করা রিডিংগুলি সঞ্চয় করে, সেগুলি আপনাকে কীভাবে সময়ের সাথে আপনার রক্তে গ্লুকোজ কমছে বা বাড়ছে তার একটি সহজ চিত্র দেয় না। এই উদ্দেশ্যে, ওয়েলদির মতো একটি অ্যাপ্লিকেশন যথেষ্ট সহায়তা করে। আপনি আপনার ডেটা সঞ্চয় করতে পারেন এবং আপনার স্মার্টফোন ব্যবহার করে যে কোনও জায়গা থেকে এটি সহজেই দেখতে বা ব্যবহার করতে পারেন।

একটি গ্লুকোমিটার আঙুলের সূঁচ ফুটিয়ে রক্তের এক ফোঁটা ব্যবহার করে রক্তের গ্লুকোজ (চিনি) পরিমাপ করে, এইভাবে আপনার ক্যাপিলারিগুলিতে থাকা পুরো রক্ত ​​ব্যবহার করে। এই পদ্ধতিটি এমন একটি অনুমান দেয় যা পরীক্ষাগা্রে রক্ত পরীক্ষার মাধ্যমে প্রাপ্ত ফলাফলের 10-20% এর মধ্যে থাকে। যদিও এটি গ্লুকোজ মাত্রার স্ব-পর্যবেক্ষণের দৃষ্টিকোণ থেকে গ্রহণযোগ্য, যখন কোনও পরীক্ষার রিডিং খুব বেশি বা খুব কম হয় বা আগের দিনের তুলনায় খুব বেশি আলাদা হয়, সেই ক্ষেত্রে পরীক্ষাগারে করা রক্ত পরীক্ষার সাহায্যে এই রিডিং-এর ব্যাপারে নিশ্চিত হওয়া উচিত।

ঘরের তাপমাত্রা, সমুদ্র-পৃষ্ঠ থেকে উচ্চতা, স্ট্রিপের মধ্যে পার্থক্য, আঙুলের সূঁচ ফুটিয়ে পাওয়া রক্তের গুণমান, যন্ত্রের বা স্ট্রিপ-এর অবস্থা, ক্রমাঙ্কনের সঙ্কেতজনিত ত্রুটি ইত্যাদি সমস্ত ব্যাপারগুলিই গ্লুকোমিটার ব্যবহার করে প্রাপ্ত পরিমাপকে প্রভাবিত করে।

গ্লুকোমিটারগুলি HbA1c পরিমাপ করে না। HbA1c বা গ্লাইকেটেড হিমোগ্লোবিন আপনাকে গত 2 মাসে রক্তের গ্লুকোজ মাত্রা সম্পর্কে একটি অনুমান দেয় যখন একটি গ্লুকোমিটার আপনাকে শুধুই তাৎক্ষণিকভাবে রক্তে গ্লুকোজ মাত্রার রিডিং দেয়। সুতরাং, HbA1c ক্লিনিশিয়ান এবং পরীক্ষা করাচ্ছেন যে ব্যক্তি, এই উভয়কেই তার রক্তের গ্লুকোজ স্তরটি সময়ের সাথে সাথে কীভাবে কমেছে বা বেড়েছে সেটা বুঝতে সাহায্য করে।

অতয়েব, আপনার গ্লুকোমিটার যন্ত্রের সঠিকভাবে দেখভাল করা, পরীক্ষাগার প্রাপ্ত পরীক্ষার মানের প্রেক্ষিতে পর্যায়ক্রমে সেগুলির কাজের পদ্ধতির সঠিক মান পরীক্ষা করা, আপনার গ্লুকোজ সম্পর্কে আরও বিশদ ধারণা পেতে HbA1c এর মতো অন্যান্য পরীক্ষা করা এবং ওয়েলদি-এর মতো অ্যাপগুলি ব্যবহার করা প্রয়োজন। এটি আপনাকে রক্তের গ্লুকোজ মাত্রা আরও ভালোভাবে ট্র্যাক করতে সহায়তা করবে এবং এইভাবে আপনার সুস্বাস্থ্য এবং জীবনযাপনের উন্নত মানের জন্য আরও ভালো সিদ্ধান্ত নিতে পারে।

Loved this article? Don't forget to share it!

Disclaimer: The information provided in this article is for patient awareness only. This has been written by qualified experts and scientifically validated by them. Wellthy or it’s partners/subsidiaries shall not be responsible for the content provided by these experts. This article is not a replacement for a doctor’s advice. Please always check with your doctor before trying anything suggested on this article/website.